গোসলে পানি অপচয় করতে নিষেধ করায় মাকে হত্যা করলো ছেলে

লিড নিউজ সমগ্র বাংলা

গোসলে পানি অপচয় করতে বারণ করেছিলেন মা। এই নিয়ে বাকবিতণ্ডায় চুয়াডাঙ্গায় মাকেই হত্যা করলো ছেলে।

সকালে দামুড়হুদা উপজেলার দর্শনায় নিজ বাড়ীর টিউবয়েলে গোসল করছিল ছেলে ইদ্রিস আলী। এসময় মা কদেবানু বেগম অতিরিক্ত পানি দিয়ে গোসল করতে নিষেধ করায় ক্ষুব্ধ হয় ছেলে। কাঠের গুড়ি দিয়ে মায়ের মাথায় আঘাত করলে জখম হয় মা।

স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে ক্লিনিকে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষনা করে। ঘটনার পর পুলিশ অভিযান চালিয়ে ছেলে ইদ্রিস আলীকে গ্রেফতার করে। ঘটনাস্থল থেকে হত্যায় ব্যবহৃত কাঠের গুড়িটি উদ্ধার করা হয়েছে।

রোববার (২১ নভেম্বর) সকাল ১১ টার দিকে দর্শনা পৌর এলাকার শ্যামপুর গ্রামে ওই ঘটনা ঘটে। নিহত কদবানু নেছা একই গ্রামের মৃত জামাল উদ্দিন মল্লিকের স্ত্রী।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। একইসঙ্গে অভিযুক্ত ছেলে ইদ্রীস আলীকে আটক করা হয়েছে।

স্থানীয়রা আরও জানান, সকালে গোসলের পানির পাইপ টানাকে কেন্দ্র করে মা কদবানুর সাথে বাগবিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়ে ইদ্রীস আলী। এক পর্যায়ে ইদ্রীস আলী উত্তেজিত হয়ে তার মা কদবানুর মাথায় বালিধারা দিয়ে আঘাত করে। এতে ঘটনাস্থলেই জ্ঞান হারান তিনি। কদবানুর ২ ছেলে ২ মেয়ের মধ্যে ইদ্রীস সবার ছোট। এসএসসি পাসের পর সে মানসিক ভারসাম্য হারায়।

দর্শনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) লুৎফুল কবির বলেন, নিহতের মরদেহের সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি করা হয়েছে। মরদেহ ময়না তদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। অভিযুক্ত ছেলে ইদ্রীস আলীকে আটক করা হয়েছে। ওই ঘটনায় মামলার বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলেও জানান তিনি।